দুর্গাপুরে করোনা সেচ্ছাসেবকরা কৃষকের পাকা ধান কেটে দিলো

রাজেশ গৌড় রাজেশ গৌড়

দুর্গাপুর,নেত্রকোনা

প্রকাশিত: ১১:৩৩ পূর্বাহ্ণ, মে ৭, ২০২০
রাজেশ গৌড়
নেত্রকোনার দুর্গাপুর উপজেলার সদর ইউনিয়নে চলতি মৌসুমের আগাম ইরি-বোরো ধান কাটা শুরু হয়েছে। ধানের বাম্পার ফলন হলেও করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে যানবাহন চলাচল না করায় ধান কাটা শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে। এ অবস্থায় কৃষকের লোকসান কমানোর জন্য গরীব কৃষকের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলার দ্রুত সেবাদানকারী স্বেচ্ছাসেবকরা ।
বৃহস্পতিবার (৭ মে) সেচ্ছাসেবকরা উপজেলার সদর ইউনিয়নের ত্রিনালী বাজারের স্থানীয় কৃষক শাহ মাহমুদের ৮ কাঠা জমির ধান কেটে দেয়। উপজেলা সেচ্ছাসেবক টিম প্রধান একেএম ইয়াহিয়ার নেতৃত্বে স্বেচ্ছাসেবক কর্মীরা ধান কাটার কাজে অংশ নেন।
কৃষক শাহ মাহমুদ বলেন শ্রমিক সংকটের কারণে পাকা ধান কাটতে পারছিলো না, জমিতেই পাকা ধান নষ্ট হতে চলছিল। স্বেচ্ছাসেবককর্মীরা ধান কেটে সাহায্য করায় কৃষকদের মুখে হাসি । স্বেচ্ছাসেবকদের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন কৃষক সহ এলাকাবাসী।
উপজেলা সেচ্ছাসেবক টিম প্রধান একেএম ইয়াহিয়া বলেন বর্তমানে করোনার কারনে ধান কাটা শ্রমিকরা বাইরে বের হতে পারছে না। এতে বিপাকে পড়েছে কৃষকরা। কৃষক যেন ক্ষতিগ্রস্ত না হয় এজন্য আমরা সেচ্ছাসেবকরা কৃষকের ধান কেটে দেয়ার উদ্যেগ নিয়েছি। তারই অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার ত্রিনালী বাজারে কৃষকের ধান কেটে দিয়েছি । আমাদের কার্যক্ষম অব্যাহত থাকবে ।
এই সময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কেএম রেজুয়াল হাসান, একাডেমিক সুপারভাইজার নাসির উদ্দিন, দুর্গাপুর মহিলা ডিগ্রী কলেজ প্রিন্সিপাল ফারুক আহমেদ, সুসং সরকারি মহাবিদ্যালয় অধ্যাপক শফিকুল আলম স্বপন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড সভাপতি আনিসুল হক সুমন, যুবলীগ নেতা মোমেন ইবনে স্ট্যালিন, প্রেসকাব সাংবাদিকবৃন্দ সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিগন উপস্থিত ছিলেন।